ব্রেকিং নিউজ

বুয়েট চাইলে ছাত্ররাজনীতি ব্যান করতে পারেঃ প্রধানমন্ত্রী

  |  ১২:২২, অক্টোবর ০৯, ২০১৯

ডেইলি সিলেট মিডিয়াঃ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, বুয়েট যদি মনে করে, ছাত্ররাজনীতি ব্যান করে দিতে পারে; এটা তাদের ব্যাপার। তবে ছাত্ররাজনীতি পুরোপুরি বন্ধের বিপক্ষে মত দেন তিনি।

বুয়েট ছাত্র আবরার ফাহাদ হত্যাকাণ্ডের জেরে ওঠা ছাত্ররাজনীতি নিষিদ্ধের দাবি নিয়ে করা সাংবাদিক জ ই মামুনের এক প্রশ্নের জবাবে প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রীর সাম্প্রতিক ভারত ও যুক্তরাষ্ট্র সফর নিয়ে বুধবার (৯ অক্টোবর) বেলা সাড়ে ৩টায় গণভবনে সংবাদ সম্মেলন ডাকা হয়। সেখানে প্রশ্ন-উত্তর পর্বে সাংবাদিককের করা নানা প্রশ্নের জবাব দেন প্রধানমন্ত্রী।

সাংবাদিক জ ই মামুন তার প্রশ্নে বলেন, আবরার হত্যাকাণ্ডের জেরে ওঠা ৮ দফার দাবির একটি হলো ছাত্ররাজনীতি নিষিদ্ধ করা। এ বিষয়ে প্রধানমন্ত্রীর মন্তব্য জানতে চান তিনি।

শেখ হাসিনা বলেন, যেকোনও আন্দোলন-সংগ্রামে ছাত্ররাই মুখ্য ভূমিকা নিয়েছে। তবে বুয়েট যদি মনে করে, ছাত্ররাজনীতি ব্যান করে দিতে পারে। এটা তাদের ব্যাপার। তবে ছাত্ররাজনীতি পুরো নিষিদ্ধের কথা তো মিলিটারি ডিক্টেটরের কথা বলে মন্তব্য করেন প্রধানমন্ত্রী। বলেন, তারাই এসে এটা নিষিদ্ধ করে, সেটা নিষিদ্ধ করে।

এসময় তিনি ছাত্রলীগ প্রতিষ্ঠার সংক্ষিপ্ত ইতিহাস তুলে ধরে বলেন, ছাত্রলীগ সবসময় একটি স্বাধীন স্বতন্ত্র সংগঠন ছিল। তবে নীতি-আদর্শের প্রশ্নে মূল দল তো কিছু দিকনির্দেশনা দেবেই। জিয়াউর রহমান আসার পর নষ্ট রাজনীতি শুরু হয়েছে, যেটা করছিলেন আইয়ুব খান। ছাত্র সংগঠনগুলোকে মূল দলের অঙ্গসংগঠন করা হয়।

শেখ হাসিনা বলেন, নেতৃত্ব উঠে এসেছে ছাত্র নেতৃত্ব থেকে। রাজনীতি শিক্ষার ব্যাপার, ট্রেনিংয়ের ব্যাপার। আমি নিজেই ছাত্ররাজনীতি করে এসেছি। দেশের ভালো-মন্দের চিন্তা তখন থেকেই আমার তৈরি হয়েছে। এজন্য তিনি দেশের মানুষের ভালোমন্দ দেখতে পারছেন বলেও মন্তব্য করেন প্রধানমন্ত্রী।

তবে একটা ঘটনার (আবরার হত্যাকাণ্ড) কারণে পুরো ছাত্ররাজনীতিকে দোষারোপ করা ঠিক হবে না বলে মন্তব্য করেন প্রধানমন্ত্রী। বলেন, এটা তো রাজনীতি নয়।

আবরার হত্যাকাণ্ডে রাজনীতি কোথায়, এমন প্রশ্ন তুলে প্রধানমন্ত্রী বলেন, এর পেছনের কারণ খুঁজে বের করতে হবে।
এসময় পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রত্যেক শিক্ষার্থীর পেছনে সরকার বিপুল খরচের কথা উল্লেখ করে তিনি হুঁশিয়ারি দিয়ে করেন, প্রতিটা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, প্রতিটা হল সার্চ করা দরকার। এজন্য তিনি সবার সহযোগিতা চান।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ